ধনিয়া < উৎপাদন পদ্ধতি

ধনিয়ার উৎপাদন খরচ

* ১বিঘা (৩৩ শতাংশ) জমিতে ফসল উৎপাদন খরচঃ খরচের খাত  পরিমাণ  আনুমানিক মূল্য (টাকা)  বীজ/চারা ৪ কেজি ২৪০ জমি তৈরি ৩টি চাষ ৬০০ পানি সেচ ২ বার ৪০০ শ্রমিক ১ জন ১৫০ সার প্রয়োজন অনুসারে জৈব সার এই সার বাড়িতেই তৈরি করা সম্ভব। তাই এর জন্য অতিরিক্ত অর্থের প্রয়োজন নেই। বিকল্প হিসেবে টিএসপি=১৬ কেজি (১ [...]

ধনিয়ার উৎপাদন খরচ২০২১-০২-১৫T২৩:২৩:৪৫+০৬:০০

ধনিয়া সংগ্রহ ও করণীয়

সংগ্রহঃ বীজ বপনের ১১০-১২০ দিন পর বীজ তোলা যাবে। যখন বীজ সম্পূর্নভাব পাকবে এবং গাছ মোটামুট সবুজ থাকবে তখনই ফসল কাটার সময় হয়। বীজ যাতে ঝরে পড়ে না যায় তার জন্য সকালে কুয়াশার পানি থাকতই হাত দিয়ে টেনে বা  কাঁচি দিয়ে ফসল কাটা উচিত। গাছ কাটার পর ছোট ছোট আঁটি বেধে ২ / ৩ দিন [...]

ধনিয়া সংগ্রহ ও করণীয়২০২১-০২-১৫T২৩:২৩:৫৮+০৬:০০

ধনিয়া চাষে অন্যান্য পরিচর্যা

পানি সেচঃ যদি পাতা সংগ্রহের জন্য ধনিয়ার চাষ করা হয় তবে ৩/৪  দিন পর পর হালকাভাব পানি সেচ দিতে হবে। নিড়ানি ও চটা ভাঙ্গাঃ নিড়ানি/কাস্তে দিয়ে আগাছা পরিষ্কার করে মাটি ঝুরঝুরা করে দিতে হবে। প্রতিবার সেচের পর ‌'জো'আসা মাত্র মাটির চটা ভেঙ্গে দিতে হবে। মালচিংঃ গ্রীষ্মকালে বীজ ফেলার পর বেডের উপর হালকা করে খড় বিছিয়ে [...]

ধনিয়া চাষে অন্যান্য পরিচর্যা২০২১-০২-১৫T২৩:২৪:০৮+০৬:০০

ধনিয়া চাষে সার ব্যবস্থাপনা

ধনিয়ার ভাল ফলনের জন্য শতাংশ (ডেসিমল) প্রতি প্রতি নিম্নোক্ত হারে সার প্রয়োগ করতে হবে – সারের নাম সারের পরিমাণ মন্তব্য পচা গোবর/কম্পোস্ট ২০ কেজি অধিকতর তথ্য জানতে এখানে ক্লিক করুন। এলাকা বা মৃত্তিকাভেদে সারের পরিমাণে কম-বেশী হতে পারে। ইউরিয়া ০.৬১-০.৭৩ কেজি টিএসপি ০.৪৪-০.৫৩ কেজি এমওপি/পটাশ ০.৩৬-০.৪৪ কেজি প্রয়োগ পদ্ধতিঃ সমুদয় কম্পোস্ট ও টিএসপি এবং অর্ধেক পটাশ জমি তৈরীর সময় প্রয়োগ করতে হবে। [...]

ধনিয়া চাষে সার ব্যবস্থাপনা২০২১-০২-১৫T২১:৫২:১৬+০৬:০০

ধনিয়ার জাত পরিচিতি

দীর্ঘদিন ধরে দেশী জাতের ধনিয়া আমাদের দেশে চাষ হয়ে আসছে। এই জাত তুলনামূলকভাবে কষ্ট সহিষ্ণু, গাছ ছোট, কান্ড সরু, পাতা ছোট, বীজ তুলনামূলকভাবে ছোট, ফলন কম কিন্তু পাতা ও বীজ খুব সুঘ্রাণযুক্ত। এসব জাত সমগ্র বাংলায় সাধারণত শীতকালেই চাষ করা হয়। বর্তমানে অনেক আধুনিক ও উচ্চ ফলনশীল জাত বের হয়েছে এর মধ্যে বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা [...]

ধনিয়ার জাত পরিচিতি২০২১-০২-১৫T২৩:২৪:৪০+০৬:০০

ধনিয়ার বপন/রোপণ পদ্ধতি

আবহাওয়া ও মাটি  এটি একটি শীতকালীন ফসল হলেও পাতা উৎপাদনের জন্য এপ্রিল-জুন মাসের তীব্র গরম বাদ দিয়ে প্রায় সারা বছরই চাষ করা চলে। বীজ উৎপাদনের জন্য তুষারপাত ও কুয়াশাহীন শুষ্ক ও শীতল আবহাওয়া প্রয়োজন। ফুল ও ফল ধরার সময় মেঘলা আবহাওয়া থাকলে রোগ পোকার আক্রমণ বেশী হয়। প্রচন্ড বৃষ্টিপাতেও গাছের বৃদ্ধি ও ফলন ব্যহত হয়। [...]

ধনিয়ার বপন/রোপণ পদ্ধতি২০২১-০২-১৫T২৩:২৪:৫৫+০৬:০০
Go to Top