বীজ বপণের সময়ঃ

গমের উচ্চ ফলনশীল জাতসমূহের বপনের উপযুক্ত সময় হলো কার্তিকের শেষ থেকে অগ্রহায়ণর তৃতীয় সপ্তাহ বা নভেম্বরের ২য় সপ্তাহ হতে ডিসেম্বরের ১ম সপ্তাহ। যেসব এলাকায় ধান কাটতে ও জমি তৈরী করতে বিলম্ব হয় সে ক্ষেত্রে আকবর, অঘ্রানী, প্রতিভা ও গৌরব চাস করলে ভাল ফলন পওয়া যায়।

বীজ হারঃ

ছিটিয়ে বুনলে বিঘা প্রতি ১৬ কেজি (শতকে আধাকেজি) হারে বীজ বপণ করতে হবে। সারিতে বপণ করলে বীজের পরিমাণ কিছু কম লাগবে। বীজ গজানোর হার ৮৫ % এর উপরে হলে ভাল হয়।

বীজ শোধনঃ

বীজ বপনের পূর্বে প্রোভ্যাক্স-২০০ নামক ছত্রাকনাশক প্রতি কেজি বীজে ২.৫-৩.০ গ্রাম হারে মিশিয়ে বীজ শোধন করতে হবে। এতে বীজ-বাহিত রোগ দমন হয় এবং শতকরা ১০-১২ ভাগ ফলন বৃদ্ধি পায়।

বপন পদ্ধতিঃ 

বীজ সারিতে এবং ছিটিয়ে বোনা যায়। তবে সারিতে বীজ বপন করা উত্তম। সারিতে বপনের জন্য জমি তৈরীর পর লাঙ্গল দিয়ে সরু নালা তৈরী করে ৮ ইঞ্চি দূরত্বের সারিতে ১.৫-২.০ সেমি. গভীরে বীজ বপন করতে হবে। আমন ধান কাটার পর জমিতে ‘জো’ আসলে পাওয়ার টিলারচালিত বীজ বপন যন্ত্রের সাহায্যে একচাষে সারিতে বীজ বপন করা যায়।

তথ্য সূত্রঃ কৃষি প্রযুক্তি হাত বই (ষষ্ঠ সংস্করণ), বারি, গাজীপুর এবং গম গবেষণা কেন্দ্র, বারি, দিনাজপুর

Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ আপডেট : ফেব্রুয়ারী ১২, ২০২১